‘আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী সালাহ উদ্দিনকে তুলে নিয়ে গেছে’

আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর লোকেরাই বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদকে তুলে নিয়ে গেছে বলে আবারও অভিযোগ করেছেন তার হাসিনা আহমেদ।
আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর লোকেরাই বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালেহ উদ্দিন আহমেদকে তুলে নিয়ে গেছে বলে আবারও অভিযোগ করেছেন তার হাসিনা আহমেদ।আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর লোকেরাই বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদকে তুলে নিয়ে গেছে বলে আবারও অভিযোগ করেছেন তার স্ত্রী সাবেক সংসদ সদস্য হাসিনা আহমেদ।

রোববার জাতীয় প্রেস ক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে উদ্বিগ্ন নাগরিক সমাজ আয়োজিত সভায় তিনি এ অভিযোগ করেন।

বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদকে খুঁজে বের করতে প্রধানমন্ত্রীকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি নির্দেশ দেয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন তার স্ত্রী সাবেক এমপি হাসিনা আহমেদ।

তিনি বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি নির্দেশ দিলে আমি আমার স্বামীকে অক্ষত অবস্থায় ফিরে পাব বলে আশা করছি।’

এ সময় হাসিনা আহমেদ তার স্বামীকে ফিরে পেতে সর্ব মহলের সহযোগিতাও চান।

হাসিনা আহমেদ বলেন, ‘প্রায় ১২ দিন হলো আমার স্বামী সালাহ উদ্দিন আহমেদের কোনো খবর জানি না। তিনি কোথায় আছেন, কিভাবে আছেন, সেটাও জানি না। ছেলে-মেয়ে নিয়ে অসম্ভব মানসিক অস্থিরতার মধ্যে দিন কাটাচ্ছি আমি।’

তিনি বলেন, ‘প্রতি মুহূর্তেই মনে হয় এই বুঝি আমার স্বামীর খোঁজ পাব, তিনি আমার কাছে ফিরে আসবেন। আমরা এখন একটি খবরই জানতে চাই- আমার স্বামী কোথায় আছেন? উনাকে আমাদের মাঝে ফিরিয়ে দেয়া হোক।’

সাবেক এই এমপি বলেন, ‘আমার স্বামী এক সময় আইনজীবী ছিলেন। প্রশাসনে কাজ করেছেন। সংসদ সদস্য হয়ে প্রতিমন্ত্রীও হয়েছিলেন। আপনাদের সকলের কাছে আমার আবেদন- সবাই আমাকে সহযোগিতা করুন। আমার ছেলেমেয়েরা যেন তার বাবাকে ফিরে পায়। আমি যেন আমার স্বামীকে ফিরে পাই।’

তিনি বলেন, ‘আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা উত্তরার একটি বাসা থেকে আমার স্বামীকে তুলে নিয়ে গেছে। এখন তাদেরই দায়িত্ব জনসম্মুখে আমার স্বামীকে হাজির করা।’

সালাহ উদ্দিনকে খুঁজে বের করতে প্রধানমন্ত্রী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দেয়ার অনুরোধ জানিয়ে হাসিনা আহমেদ বলেন, ‘‍প্রধানমন্ত্রীর কাছে বারবার বিনীতভাবে অনুরোধ করছি- তিনি যেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশ দেন। তারা যেভাবে আমার স্বামীকে তুলে নিয়ে গেছে, ঠিক সেভাবেই যেন আমার স্বামীকে অক্ষত অবস্থায় আমাদের কাছে ফিরিয়ে দেন।’

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীসহ সর্বমহলের সবাই যদি আমাকে সহযোগিতা করেন, তাহলে আমি আমার স্বামীকে ফিরে পাব। আল্লাহর প্রতি আমার পূর্ণ আস্থা ও বিশ্বাস আছে, তিনি সম্পূর্ণ অক্ষত অবস্থায় আমার স্বামীকে ফিরিয়ে দিবেন।’

সংবাদ সম্মেলনে সালাহ উদ্দিনকে অক্ষত অবস্থায় ফিরিয়ে দেয়ার দাবি জানিয়ে নাগরিক সমাজের পক্ষে বক্তব্য তুলে ধরেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. সুকোমল বড়ুয়া।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্জারি বিভাগের সাবেক ডিন অধ্যাপক ডা. সাইফুল ইসলাম, বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যান্সার বিভাগের অধ্যাপক ডা. সৈয়দ আকরাম হোসেন, সুপ্রিমকোর্ট বারের সাবেক সভাপতি ড. গিয়াস উদ্দিন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক আক্তার হোসেন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *