রুবেলকে ক্ষমা করে দিলেন হ্যাপী

জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেল হোসেনকে নিঃশর্ত ক্ষমা করে দিয়েছেন মডেল ও অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপী।

জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেল হোসেনকে নিঃশর্ত ক্ষমা করে দিয়েছেন মডেল ও অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপী।জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেল হোসেনকে নিঃশর্ত ক্ষমা করে দিয়েছেন মডেল ও অভিনেত্রী নাজনীন আক্তার হ্যাপী। একই সঙ্গে রুবেলের বিরুদ্ধে করা মামলাও আর চালাবেন না বলে জানিয়েছেন তিনি।

হ্যাপী মঙ্গলবার বলেন, ‘আমি রুবেলের বিরুদ্ধে করা মামলা আর চালাব না। তাকে আমি নিঃশর্ত ক্ষমা করে দিয়েছি।’

হ্যাপী বলেন, ‘শুধু তাই নয়, মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তাকে তদন্তের জন্য কোনো প্রকার ডকুমেন্টও পেশ করব না। যেহেতু আমি মামলার কোনো কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করব না, তাই মামলা এমনিতেই শেষ হয়ে যাবে।’

এর আগে সোমবার বিশ্বকাপ ক্রিকেটে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে পৌঁছে বাংলাদেশ। ওই খেলায় রুবেলের সাফল্যে দারুণ উচ্ছ্বসিত হন হ্যাপী। তিনি বলেন, ‘আমি অনেক খুশি। এটা ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। পরিবারের সবাইকে নিয়ে বাসায় শুরু থেকেই খেলা দেখেছি। রুবেলের বোলিংয়ে জয় নিশ্চিত হয়েছে। এটা আমার জন্য অনেক আনন্দের।’

হ্যাপী আরও বলেন, ‘খেলার শেষের দিকে মনে হচ্ছিল হেরে যাচ্ছি। শেষ দুই উইকেট নিয়ে চমক দেখিয়েছে রুবেল। রুবেলের এই চমকে দেওয়া সাফল্যের জন্য আমি গর্বিত। আমি ভাষা হারিয়ে ফেলেছি।’

উল্লেখ্য, এ মামলায় রুবেল হোসেন তিন দিন কারাগারে ছিলেন। মামলায় হ্যাপী অভিযোগ করেন, ফেসবুকে রুবেলে সঙ্গে পরিচয় হয় তার। এরপর রুবেলের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে সর্বশেষ গত বছরের ১ ডিসেম্বর রুবেল হ্যাপীর ইচ্ছার বিরুদ্ধে তার সঙ্গে দৈহিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন। এ সময় হ্যাপী তাকে বিয়ের প্রস্তাব দিলে এড়িয়ে যান রুবেল।

এ ঘটনার পর ওই বছরের ১৩ ডিসেম্বর মিরপুর মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে (মামলা নং-৩৭) হ্যাপী বাদী হয়ে রুবেল হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *