Mohammed-bin-Salman-named-Saudi-Arabia’s-crown-prince

সৌদি আরবের নতুন যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান

সৌদি আরবের ক্রাউন প্রিন্স (যুবরাজ) হিসেবে মোহাম্মদ বিন সালমান আল সৌদের (৩১) নাম ঘোষণা করা হয়েছে। এর ফলে পদচ্যুত হলেন মোহাম্মদ বিন নায়েফ আবদুল আজিজ (৫৭)।

বুধবার সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা সৌদি প্রেস এজেন্সি (এসপিএ) এ তথ্য জানিয়েছে।

সৌদি বাদশার ছেলে মোহাম্মদ বিন সালমান আল সৌদ (৩১) এর আগে দেশটির ডেপুটি ক্রাউন প্রিন্স ছিলেন এবং প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করতেন। তিনি দেশটির অর্থনৈতিক ও উন্নয়নবিষয়ক কাউন্সিলেরও প্রধান। তিনি তেলনির্ভর দেশটির জ্বালানি নীতির ব্যাপক পরিবর্তন করে অন্যান্য খাতকে সামনে এনে অর্থনীতিকে শক্তিশালী করার মহাপরিকল্পনা হাতে নিয়েছেন। সাধারণত যুবরাজই বাদশার উত্তরসূরি হন।

আগের যুবরাজ মোহাম্মদ বিন নায়েফ আবদুল আজিজ ছিলেন বাদশার ভাইপো। তিনি দেশটির সন্ত্রাসবিরোধী কাউন্সিলের প্রধান। বাদশা ভাইপোকে সরিয়ে নিজের ছেলেকে যুবরাজের পদ দিলেন।

মোহাম্মদ বিন সালমান আল সৌদ সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন ইয়েমেনের যুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন। আল অ্যারাবিয়া টেলিভিশন চ্যানেল জানিয়েছে, নতুন যুবরাজের ফরমানের বিষয়টি সৌদির সাকসেশন কমিটির অনুমোদন পেয়েছে।

সম্প্রতি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সৌদি আরব সফর ও গৃহীত দ্বিপাক্ষিক বিভিন্ন সিদ্ধান্ত সালমানের ‘সাফল্য’ বলে অভিহিত করা হয়।

এসপিএ জানিয়েছে, নতুন প্রিন্স দেশটির সামগ্রিক অর্থনৈতিক অবস্থার পরিবর্তনে কাজ করবেন। এছাড়া তিনি দেশটির জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ এবং সেনাবাহিনীর দায়িত্বেও থাকবেন।

গত মার্চে বিন সালমান ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাত করেন। হোয়াইট হাউজের সেই বৈঠকে ইরানকে আঞ্চলিক শান্তির বিপরীতে হুমকি হিসেবে চিহ্নিত করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *