শিক্ষক নিবন্ধনের স্কুল পর্যায়ের পরীক্ষা পিছিয়েছে

শিক্ষক নিবন্ধনের স্কুল পর্যায়ের পরীক্ষা পিছিয়েছে

শিক্ষক নিবন্ধনের স্কুল পর্যায়ের পরীক্ষা পিছিয়েছেত্রয়োদশ বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধনের স্কুল পর্যায়ের পরীক্ষার তারিখ পিছিয়েছে। স্কুল পর্যায়ের প্রিলিমিনারি টেস্ট আগামী ৬ মে’র পরিবর্তে ১৩ মে বিকেল ৪টায় অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে গত ২৬ এপ্রিল কলেজ পর্যায়ের শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা ৭ মে থেকে পিছিয়ে ১৩ মে নেওয়া হয়। কলেজ পর্যায়ের পরীক্ষা সকাল ১০টায় শুরু হয়ে ১১টায় শেষ হবে। দু’টি পরীক্ষারই সময় এক ঘণ্টা।

ফলে স্কুল ও কলেজ পর্যায়ের দুটি পরীক্ষায়ই একদিনে হচ্ছে। তবে কী কারণে সময় পরিবর্তন করা হল তা জানানো হয়নি।

নিবন্ধন সনদের মেয়াদ আগে ৫ বছর থাকলেও ২০১৩ সালের ২০ জুন তা আজীবন করা হয়। সম্প্রতি ‘বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা গ্রহণ ও প্রত্যয়ন বিধিমালা, ২০০৬’ সংশোধন করে সনদের মেয়াদ তিন বছর করা হয়।

নতুন পদ্ধতিতে শিক্ষক নিয়োগে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এনটিআরসিএ’র ওয়েবসাইটে আগামী ৭ মে’র মধ্যে নিবন্ধন করতে বলা হয়েছে।

এবার ২০টি জেলায় শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি এবং আটটি বিভাগীয় শহরে লিখিত পরীক্ষা নেওয়া হবে বলে জানায় এনটিআরসিএ। লিখিত পরীক্ষার পর উত্তীর্ণদের মৌখিক পরীক্ষা নিয়ে চূড়ান্ত ফল ঘোষণা করা হবে।

পরবর্তীতে শূন্য পদের চাহিদা নিয়ে উপজেলা, জেলা, বিভাগ ও জতীয়- এসব ক্যাটাগরিতে মেধা তালিকা তৈরি সে অনুযায়ী নিয়োগ দেবে এনটিআরসিএ।

বেসরকারি স্কুল-কলেজে শিক্ষক নিয়োগের জন্য ২০০৫ সাল থেকে এনটিআরসিএ এই পরীক্ষা নেওয়া শুরু করে।

আগে একই দিন একসঙ্গে এক ঘণ্টা এমসিকিউ ও তিন ঘণ্টার লিখিত পরীক্ষা নেওয়া হলেও দ্বাদশ শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা থেকে এমসিকিউ ও লিখিত পরীক্ষা আলাদাভাবে নিচ্ছে এনটিআরসিএ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *