বিশ্বের সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস
সাময়িকী

বিশ্বের সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

আমরা দৈনন্দিন জীবনে এমন অনেক জিনিস ব্যবহার করি যেগুলো প্রয়োজনীয় অথচ এগুলো সবচেয়ে বেশি নোংরা হয়ে থাকে।

জেনে নিন বিশ্বের সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস।

১. স্মার্টফোন
স্মার্টফোন ছাড়া এখন জীবনই যেন প্রায় অচল। কিন্তু এই ব্যবহৃত স্মার্টফোন টয়লেটের চেয়েও নোংরা। কখনও কখনও নাকি টয়লেটের চেয়ে অন্তত দশগুণ ব্যাকটেরিয়া থাকে স্মার্টফোনে। সুতরাং প্রত্যেকের উচিত মোবাইলে অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল কোটিং ব্যবহার করা কিংবা প্রতিদিন অন্তত একবার ‘অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল ওয়াইপস’ দিয়ে মোবাইলটি পরিষ্কার করা।

২. ইয়ারফোন
ইয়ারফোন বা ইয়ারবাডসের ব্যবহারও দিনদিন বাড়ছে। কিশোর-কিশোরী, তরুণ-তরুণীদের বড় একটা অংশই কানে এই ধরনের যন্ত্র লাগিয়ে গান শুনতে ভালোবাসে। অনেকে ফোনে কথাও বলে ইয়ারফোন কানে গুঁজে। এই বস্তুটিতেও ব্যাকটেরিয়া গিজগিজ করে৷ সুতরাং তা নিয়মিত পরিষ্কার করা অত্যাবশ্যক। পুরোনো টুথব্রাশ দিয়ে প্রথমে বাইরের ধুলোবালি বিদায় করে তারপর গরম পানিতে ভেজানো নরম কাপড় দিয়ে মুছে নিলেই এটি বেশ পরিষ্কার হয়ে যায়।

৩. কম্পিউটারের কি-বোর্ড ও মাউস
আপনার কম্পিউটারের কি-বোর্ড আর মাউস ভালো করে দেখুন। দু’টোতেই কত ময়লা জমেছে, তা খালিচোখেই বুঝতে পারছেন তো? টয়লেটের চেয়ে পাঁচগুণ ব্যাকটেরিয়া থাকে কি-বোর্ড ও মাউসে। তাই ভ্যাকুয়াম ক্লিনারের পাইপের সামনের অংশটি খুলে পাইপটি ওপরে ধরে এগুলোর ভেতরের ধুলো পরিষ্কার করা যেতে পারে। তারপর অবশ্যই অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল ওয়াইপস দিয়ে কি-বোর্ড আর মাউস মুছে নেওয়া উচিত।

৪. গাড়ির স্টিয়ারিং
গাড়ির স্টিয়ারিংও প্রতিদিনই পরিষ্কার করা উচিত৷ কেননা, এটি ব্যাকটেরিয়ার আদর্শ ‘বিচরণভূমি’৷

৫. টুথব্রাশ
খুব কম মানুষই টুথব্রাশ পরিষ্কার করে। অথচ টয়লেট থেকে জীবাণু সহজেই এতে আশ্রয় নিতে পারে বলে এটা পরিষ্কার রাখা আরও বেশি দরকার।

৬. শপিং ব্যাগ
বারবার ব্যবহার করা যায় এমন শপিং ব্যাগগুলোও পরিষ্কার না করলে সেই ব্যাগে যখন যা কিনে আনবেন,তা-ই জীবাণুযুক্ত হবে। সুতরাং শপিং ব্যাগও নিয়মিত পরিষ্কার করুন।

৭. টাকা
টাকার চেয়ে দরকারি অথচ নোংরা জিনিস পৃথিবীতে বোধহয় দ্বিতীয়টি নেই৷ কারণ,টাকা খুব দ্রুত হাতে হাতে বিভিন্ন স্থান, বিভিন্ন পরিবেশে ঘুরে বেড়ায়। কিন্তু টাকা তো পরিষ্কার করা যাবে না, তাই পরামর্শ- টাকা ধরার পরই হাত ধুয়ে ফেলুন। নিজের ডেবিট কার্ড ব্যবহার করে টাকার স্পর্শ যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলুন।

শিরোনাম ডট কম
শিরোনাম ডট কম । অনলাইন নিউজ পোর্টাল Shironaam Dot Com । An Online News Portal
http://www.shironaam.com/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *