Farhad-Mazhar-kidnapped

ফরহাদ মজহারকে অপহরণ

বিশিষ্ট কবি, লেখক ও কলামিস্ট ফরহাদ মজহারকে অপহরণ করা হয়েছে বলে সন্দেহ করছেন তার পরিবারের সদস্যরা।

সোমবার ভোর চারটার দিকে একজন পরিচিত ব্যক্তির ফোন পেয়ে বাসা থেকে বেরিয়ে যান তিনি। এরপর থেকে আর তার সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না।

ফরহাদ মজহারের ঘনিষ্ঠ এক সূত্র জানান, আজ ভোর সাড়ে চারটার দিকে তাঁর স্ত্রী ঘুম থেকে উঠে ফরহাদ মজহারকে কম্পিউটারে কাজ করতে দেখেন। এরপর তিনি পাঁচটার দিকে আবার উঠে দেখেন, তিনি কম্পিউটারের টেবিলে নেই। এরপর তাঁর স্ত্রী ঘুমিয়ে পড়েন। ভোর ৫টা ২৯ মিনিটে স্ত্রীকে ফোন করে ফরহাদ মজহার বলেন, ওরা আমাকে নিয়ে যাচ্ছে। ওরা আমাকে মেরে ফেলবে। এরপর ৬টা ২১ মিনিটে আবার ফোন আসে, পরে আবারও আসে। সেসব ফোনে পরিবারের কাছে ৩৫ লাখ টাকা দাবি করা হয়।

আদাবর থানার এসআই মোহসিন সাংবাদিকদের বলেন, সকাল ১০টার দিকে ফরহাদ মজহারের এক আত্মীয় থানায় এসে অভিযোগ করেন, তাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। ভোর চারটার দিকে পরিচিত এক লোকের ফোন পেয়ে বাসা থেকে বেরিয়ে যান। এরপর আর তার সঙ্গে যোগাযোগ হয়নি।

ফরহাদ মজহারের ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত রুমেল হোসেন বলেন, “ফরিদা আপার (ফরহাদ মজহারের সহধর্মিনী ফরিদা আখতার) সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। আরও কয়েকজনের সঙ্গেও কথা হয়েছে। তাকে অপহরণের কথা বলেছেন তারা।”

রুমেল বলেন, ভোরের দিকে ফরহাদ ভাই ঘুম থেকে উঠেন। তাকে কেউ একজন ডাক দিয়েছেন এবং ডাক শুনে তিনি চার তলা থেকে নিচে নামেন। এরপর তাকে আর পাওয়া যায়নি। এরপর তিনি ফোনে দুই-তিনবার ফরিদা আপার সঙ্গে কথা বলেছেন। এর মধ্যে একবার তিনি বলেন, ওরা আমাকে নিয়ে যাচ্ছে, আমাকে মেরে ফেলবে। এরপর তিনি আবার ফোনে কথা বলেন। তখন তিনি জানিয়েছেন তারা ৩৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ চায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *