দেশের চলমান রাজনৈতিক অস্থিরতায় পোশাক শিল্পে ৩০ শতাংশ অর্ডার কমে গেছে বলে জানিয়েছেন তৈরি পোশাক ও রফতানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএ সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম।
অর্থনীতি

পোশাক শিল্পে ৩০ শতাংশ অর্ডার হ্রাস

দেশের চলমান রাজনৈতিক অস্থিরতায় পোশাক শিল্পে ৩০ শতাংশ অর্ডার কমে গেছে বলে জানিয়েছেন তৈরি পোশাক ও রফতানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএ সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম।দেশের চলমান রাজনৈতিক অস্থিরতায় পোশাক শিল্পে ৩০ শতাংশ অর্ডার কমে গেছে বলে জানিয়েছেন তৈরি পোশাক ও রফতানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএ সভাপতি মো. আতিকুল ইসলাম।

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে অবস্থিত বিজিএমইএ ভবনের সামনে চলমান রাজনৈতিক সহিংসতার প্রতিবাদে বিজিএমইএ, বাংলাদেশ নিট ম্যানুফ্যাকচার এক্সপোর্টার্স এ্যাসোসিয়েশন (বিকিএমইএ) ও বাংলাদেশ টেক্সটাইল ম্যানুফ্যাকচার এ্যাসোসিয়েশন (বিটিএমএ) আয়োজিত মানববন্ধনে বুধবার দুপুরে তিনি এ কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘বড়দিনের শেষে ও বছরের শুরুতে নতুন রফতানির অর্ডারের সময় হলেও ক্রেতারা অর্ডার দিতে আসছে না। অবরোধ-হরতালে ইতোমধ্যে পোশাক শিল্পে ৩০ শতাংশ অর্ডার কমে গেছে। পোশাক শিল্পের সমগ্র সাপ্লাই চেইন ভেঙে পড়ছে। এতে আমরা অর্থনৈতিক সঙ্কটে পড়তে যাচ্ছি। এর ফলে বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক ব্যবসা হারানোর পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে।’

রাজনীতিবিদদের উদ্দেশে বিজিএমইএ সভাপতি বলেন, ‘রাজনীতিবিদদের কাছে আজ ব্যবসায়ীরা জিম্মি। অর্থনীতি ধ্বংস করে আপনারা রাজনীতি করবেন না। কারণ এ পরিস্থিতি অব্যাহত থাকলে ক্রেতাদের মধ্যে অনিশ্চিয়তা সৃষ্টি হবে।’

মানববন্ধন শেষে ব্যবসায়ীরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার কাছে স্মারকলিপি দেবেন বলে জানিয়েছেন আতিকুল ইসলাম।

মানববন্ধনে এফবিসিসিআই এর সহ-সভাপতি হেলাল উদ্দিন বলেন, ‘হরতাল-অবরোধ প্রয়োজনে আইনের মাধ্যমে বন্ধ করতে হবে। আমরা আইন করে আগামী ২০ বছরের জন্য হরতাল-অবরোধ বন্ধ করার দাবি জানাচ্ছি।’

মানববন্ধনে সরকাররের কাছে শিল্পে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ও ব্যবসার সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত, জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত এবং সহিংসতা বন্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান ব্যবসায়ীরা।

পাশাপাশি চলমান রাজনৈতিক সঙ্কট রাজনৈতিকভাবে সমাধানের পথ খোঁজার আহ্বান জানান তারা।

এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিজিএমইএ’র সাবেক সভাপতি ও এক্সপোর্টারস এ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ইএবি) সভাপতি আব্দুস সালাম মোর্শেদী ও তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা তপন চৌধুরী প্রমুখ। এ ছাড়া প্রায় অর্ধশত ব্যবসায়ী ও শ্রমিক সংগঠনের সহস্রাধিক প্রতিনিধি মানববন্ধনে অংশ নেন।

মানববন্ধনে সারা দেশে সহিংসতায় নিহতদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

শিরোনাম ডট কম
শিরোনাম ডট কম । অনলাইন নিউজ পোর্টাল Shironaam Dot Com । An Online News Portal
http://www.shironaam.com/

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *