গাজীপুরে ১৪৪ ধারা জারি

বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০-দলীয় জোটের পূর্বনির্ধিারিত জনসভা ঠেকাতে ক্ষমতাসীন ছাত্রলীগের হুমকির প্রেক্ষাপটে উত্তেজনা দেখা দেওয়ায় গাজীপুর জেলা প্রশাসন জেলায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে।

section 144_imposed_in_Gazipurবিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০-দলীয় জোটের পূর্বনির্ধিারিত জনসভা ঠেকাতে ক্ষমতাসীন ছাত্রলীগের হুমকির প্রেক্ষাপটে উত্তেজনা দেখা দেওয়ায় গাজীপুর জেলা প্রশাসন জেলায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে।

আগামীকাল শনিবার গাজীপুর ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজ মাঠে স্থানীয় ২০ দল এই সমাবেশ আহ্বান করে। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বক্তব্য দেওয়া কথা ছিল।

বিএনপির এই সমাবেশ কর্মসূচি ঘোষণার পরে ক্ষমতাসীন ছাত্রলীগ একই স্থানে সমাবেশ ঠেকাতে নিজেরা পাল্টা সমাবেশ ডাকে। এরপর তারা গত দুদিন সেখানে সশস্ত্র অবস্থান নেয়।

এ পরিপ্রেক্ষিতে শুক্রবার গাজীপুর জেলা প্রশাসন আইনশৃঙ্খলা কমিটির জরুরি বৈঠক ডাকে। বৈঠক শেষে দুপুরে জেলার পুলিশ সুপার হারুন-অর রশিদ ১৪৪ ধারা জারির কথা সাংবাদিকদের জানান।

তিনি বলেন, বিএনপি ও ছাত্রলীগের মধ্যে সমঝোতা না হওয়ায় গাজীপুর জেলায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। শুক্রবার বেলা দুইটা থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত জেলায় সব ধরনের সভা-সমাবেশ ও মিছিলে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

পুলিশ সুপার বলেন, ‘সমাবেশ ডাকা দুইপক্ষ ঐকমত্যে পৌঁছাতে পারেনি। এজন্য আমরা কাউকেই সভা-সমাবেশ করার অনুমতি দিতে পারছি না।’

এর আগে শুক্রবার সকালে জেলা সার্কিট হাউসে আইনশৃঙ্খলা কমিটির বিশেষ সভা হয়। সভা শেষে গাজীপুরের জেলা প্রশাসক নুরুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, সমঝোতা না হলে কোনো দলকেই গাজীপুরের সমাবেশ করতে দেওয়া হবে না।

তিনি জানান, শনিবারের জনসভার জন্য আমরা কাউকে অনুমতি দেইনি। বিবাদমান দুটি রাজনৈতিক দল একই স্থানে সমাবেশ ডাকায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির বিঘ্ন ঘটতে পারে এই আশঙ্কায় কাউকে সমাবেশ করতে দেওয়া হয়নি।

জেলা প্রশাসক নুরুল ইসলাম বলেন, এরপরও জনগণের জানমালের নিরাপত্তায় জেলার গুরুত্বপূর্ণ স্থানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

প্রশাসনের অনুমতি ছাড়া কেউ সভা-সমাবেশ করতে চাইলে তাদের সে তৎপরতা কঠোর হস্তে দমন করা হবে বলেও হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

বৈঠকে জেলা প্রশাসক ছাড়া জেলা পুলিশ সুপার হারুন-অর রশীদ এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *