হলুদ থেকে ক্যান্সারের ওষুধ উদ্ভাবন

হলুদ থেকে ক্যান্সারের ওষুধ উদ্ভাবন

658
0
SHARE

হলুদ থেকে ক্যান্সারের ন্যানো ওষুধ তৈরি করেছেন ইরানের একদল গবেষক। ক্লিনিক্যাল পরীক্ষায় ক্যান্সারের বিরুদ্ধে এ ওষুধের কার্যকারিতার বিষয়ে নিশ্চিত হয়েছেন তারা।হলুদ থেকে ক্যান্সারের ন্যানো ওষুধ তৈরি করেছেন ইরানের একদল গবেষক। ক্লিনিক্যাল পরীক্ষায় ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এ ওষুধের কার্যকারিতার বিষয়ে নিশ্চিত হয়েছেন তারা।

একইসঙ্গে এ ওষুধ তৈরির প্রয়োজনীয় সব উপাদান সহজলভ্য বলেও জানিয়েছেন গবেষকরা।

সম্প্রতি তেহরান বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসা বিজ্ঞান বিভাগের ক্যান্সার গবেষণা কেন্দ্র এ ওষুধ তৈরি করেছে।

গবেষকদের মতে, তাদের তৈরি পলিমারভিত্তিক ন্যানো বাহকের মাধ্যমে সুনির্দিষ্ট কোষকলায় পৌঁছে দেয়া হবে ক্যান্সারবিরোধী ওষুধ কারকিউমিন। ক্যান্সার আক্রান্ত কোষকলা ধ্বংস এবং ক্যান্সার প্রতিহত করার ক্ষমতা হলুদের এ উপাদানের আছে। এ ছাড়াও, জারণ ও প্রদাহ প্রতিরোধী ক্ষমতাও আছে হলুদের।

বিষাক্ত প্রভাবক ব্যবহার না করে এই ন্যানো বাহক তৈরি করা হয়েছে উল্লেখ করে ইরানের ন্যানো টেকনোলজি ইনিশিয়েটিভ কাউন্সিলের ডা. আলীরেজা মোহাম্মদ আলীজাদেহ জানান, পরীক্ষা চলাকালে অনেক রোগীকে এ ওষুধ দেয়ার পর এর কার্যকারিতা প্রমাণিত হয়েছে।

প্রথম পর্যায়ের ক্লিনিক্যাল পরীক্ষায় অতি উচ্চমাত্রায় প্রয়োগ করা সত্ত্বেও এ ওষুধের কোনো বিষক্রিয়া রোগীর দেহে দেখা যায়নি। ওষুধরোধী স্তন ও পরিপাক নালীর ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীদের ওপর চালানো দ্বিতীয় পর্যায়ের ক্লিনিক্যাল পরীক্ষাও প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে বলে জানান তিনি।

ন্যানো-কারকিউমিন তৈরির মৌলিক সব উপাদান দেশেই পাওয়া যায় জানিয়ে উল্লেখ করে ডা. আলীরেজা বলেন, ক্যান্সার বিধ্বংসী এ ওষুধের গণ-উৎপাদন ইরানেই সম্ভব।

Comments

comments