আত্মহত্যার প্ররোচনা দেয় যে গাছ

আত্মহত্যার প্ররোচনা দেয় যে গাছ

248
0
SHARE

আত্মহত্যার প্ররোচনা দেয় যে গাছ আত্মহত্যার প্ররোচনা দেয় যে গাছ সেটির নাম হয়ত আপনার অজানা। যার কারণে আপনি চাইবেন আপনার যেন দ্রুত মৃত্যু ঘটে! ‘ড্রেনড্রকনাইড মরইডেস’ (Dendrocnide moroides) এ ধরনের প্রাণঘাতী গাছ অস্ট্রেলিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চলের রেইনফরেস্টে দেখতে পাওয়া যায়। এটি ‘আত্মহত্যার গাছ’ হিসেবে পরিচিত।

কারণ এই গাছের হুল শরীরে লাগলে তা এতটাই যন্ত্রণাদায়ক যে, শোনা যায় একজন ভুক্তভোগী ওই যন্ত্রণা থেকে মুক্তি পেতে আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছিলেন! ঝোপঝাড়ে বেড়ে ওঠা যন্ত্রণাদায়ক গুল্ম হিসেবে খ্যাত এই উদ্ভিদটি গেম্পি গেম্পি, দ্য সুইসাইড প্লান্ট, মুনলাইটার নামেও পরিচিত। এই গাছটি সম্পূর্ণভাবে হুলে আচ্ছাদিত এবং এর হুল যন্ত্রণাদায়ক কারণ তা প্রবলভাবে কার্যকর উচ্চ নিওরোটক্সিন নির্গত করে। বিষাক্ত এই হুল মানব শরীরে লাগলে তা দুঃসহ যন্ত্রণাদায়ক অনুভূতি দেয়।

এই গাছের হুল শরীরে বিধঁলে তার চিকিৎসা হচ্ছে, ওয়াক্স স্ট্রিপের মাধ্যমে ত্বক থেকে গাছের হুল তুলে ফেলা এবং ত্বকের আক্রান্ত স্থানে হাইড্রোক্লোরিক এসিডের দ্রবণ লাগানো।

যা হোক, গাছটির হুল শরীরে লাগায় যে ব্যথা শুরু হয় তা দু’বছর পর্যন্ত স্থায়ী হতে পারে। ভুক্তভোগীদের মতে, এই ব্যথা খুবই ভয়ংকর। এক ব্যক্তি তা সহ্য না করতে পেরে আত্মহত্যা করেছিলেন। এক ভুক্তভোগী জানিয়েছেন ‘দু বা তিন দিনের জন্য ব্যথা প্রায় অসহনীয় ছিল, আমি কোনও কাজ করতে পারিনি, ঘুমাতে পারিনি। এই যন্ত্রণা দু’বছর ধরে চলেছে এবং সবসময় আমি ঠান্ডা জলে ডুবে বসে থাকতাম।’

Comments

comments